Breaking News

৩ দিনের আন্দোলনে হাপিয়ে রিফ্রেশমেন্টে !হিম্মত লাগেরে ভাই. রক্তের সাথে বেঈমানী করে হাত মিলিয়েছি,

গত ২দিন থেকে ফেসবুক ভাইরাল একটা পোস্ট মোঃ মিরাজ সাতক্ষীরা আইডি থেকে তা হুবহু তুলে ধরা হলোঃ তিনদিনের_আন্দোলনে হাপিয়ে রিসোর্টে গিয়েছেন রিফ্রেশমেন্টের জন্য! অথচ আমরা যদি সত্যিকার ইসলামী আন্দোলনের দিকে তাকাই..?

বাবা ফা’সির মঞ্চে, আজ রাত ১০ টায় হবে কি না.? এই বুঝি ডাক এলো শেষ দেখা করার জন্য! মা কুরআন তেলাওয়াতে। বোনের বাড়ি যৌত বাহিনীর অভিযান! ভাই গুম হয়ে গেছেন। খোজ মিলছেনা। কিন্তু নেতা…!! এখনো অটল। বলছেন,

তোমরা ধৈর্য ধরো…দেখা হবে জান্নাতে ইনশাআল্লাহ। শারীরিক সব টেস্ট সম্পন্ন। সবগুলোই নর্মাল। পরিবারকে সাংবাদিকরা একের পর এক ভাবে প্রশ্ন করেই যাচ্ছে। তবুও দু আঙ্গুল তুলে বিজয় চিহ্ন..! দলীয় নেতাকর্মীরা বাড়ি ছাড়া। ফা’সির পর লাশ নিয়ে কতো নাটক!

জানাযাতে বাধা! কর্মসূচিতে গু’লি। সহকর্মীর মৃত্যুর সংবাদ এসেছে। গু’লিবিদ্ধ বহু নেতৃবৃন্ধ। ক্ষ’তবিক্ষত হচ্ছে কতো পরিবার। কিন্তু ভারপ্রাপ্ত আমীর রিসোর্ট খুজতেছেন না। স্ত্রী সন্তানকে ডেকে নিয়ে আসছেন। বলছেন এই চেয়ারটা শাহাদাৎ এর চেয়ার।

নতুন কর্মসূচির জন্য তিনি প্রস্তুত। হুম এগুলোও আন্দোলন ছিল। আন্দোলনে সফলতাও ছিল। ইসলাম পার্লামেন্টে গিয়েছিল। ইসলামী নেতা মন্ত্রীও হয়েছিল। দূরদর্শিতা অনেকের গদিকে কাপিয়েছে।

কিন্তু আমরা তখনো আক্বীদা খুজতে ব্যস্ত, স্বরূপ উদঘাটনে ব্যস্ত, আমরা খাটিয়া ধরা নিয়ে ব্যস্ত, আমরা সালাতে হাত বাধা নিয়ে ব্যাস্ত,আমরা নারীর সাথে জোট নিয়ে ব্যস্ত, আমরা কতো কিছু খুজতে ব্যস্ত, দিন শেষে আমাদের কিছুই নেই৷ আমরা বরাবরের মতোই ব্যবহৃত হয়েছি…. রক্তের সাথে বেঈমানী করে হাত মিলিয়েছি, আমরা টাকা ও স্বাচ্ছন্দ্যের লোভে পড়ে অতীত ভুলেছি, দিন শেষে এই আমরাই ১৭ টা লাশের উপর পা রেখে রিফ্রেশমেন্ট খুজতেছি। অথচ এই পথটা কাটা বিছানো…!!! নারায়ে তাকবীর শ্লোগানটা ছোট কিন্তুু এই শ্লোগানের বাস্তবতা নিতে হিম্মত লাগেরে ভাই….!!!

About Tahsin Rahman

Check Also

এটাকি পুলিশি রাষ্ট্র হয়ে গেছে নাকি- বলা যুবকের সাথে হা’তাহাতি, ৩ পুলিশ শা’স্তিমূলক ক্লোজড

সোশ্যাল মিডিয়া জুড়ে ভাইরাল সেই ভিদিওতে দেখা যায় একজন যুবকের সাথে কয়েকজন পুলিশ হা’তাহাতি করতে …