ছাত্রলীগকে অর্থের পেছনে না ঘুরে যে নির্দেশ দিলেন প্রধানমন্ত্রী

ছাত্রলীগের নেতাকর্মীদের অর্থ সম্পদের পেছনে না ঘুরে মানুষের সেবায় কাজ করার নির্দেশ দিয়েছেন আওয়ামী লীগ সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা।

বুধবার (৩১ আগস্ট) দুপুরে বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে ছাত্রলীগের আয়োজিত আলোচনা সভায় এ কথা বলেন তিনি।

শেখ হাসিনা বলেন, বঙ্গবন্ধু সংগঠন করার জন্য মন্ত্রিত্ব ছেড়েছিলেন। তবে এখন মন্ত্রিত্ব পেতে অনেকে সংগঠন করে। সংগঠন শক্তিশালী করতে যেকোনো ত্যাগ স্বীকার করতে নেতাকর্মীদের সেরকম মনমানসিকতা গড়ে তুলতে হবে।

তিনি বলেন, গ্রুপ ভারি করার জন্য যাকে তাকে দলে ঢোকানো যাবে না। এ বিষয়ে ছাত্রলীগ নেতাকর্মীদের সতর্ক থাকার নির্দেশ দেন প্রধানমন্ত্রী। বলেন, চতুর্থ শিল্প বিপ্লবের জন্য নিজেদের যোগ্য করে গড়ে তুলতে হবে।

প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমরা বাংলাদেশের উন্নতি করতে পেরেছি। কিন্তু আমাদের অনেক দূর যেতে হবে। আমি পরিকল্পনা করে দিয়ে যাচ্ছি। ২০৪১ সালের উন্নত দেশের এবং ২১০০ সালের বদ্বীপ পরিকল্পনা করে যাচ্ছি।

এর বাস্তবায়ন করতে হবে তোমাদের। এ সময় প্রধানমন্ত্রী বলেন, আমেরিকা ইউরোপের অবস্থা ভয়াবহ। তাদের মতো পরিস্থিতি যেন আমাদের না হয় সেজন্য আগে থেকে সতর্ক থাকতে হবে। বিদ্যুৎ, পানি ও জ্বালানি সাশ্রয় করতে হবে, যাতে বড় কোনো সংকটে পড়তে না হয়।

চতুর্থ শিল্প বিপ্লবের জন্য নিজেদের যোগ্য করে গড়ে তুলতে হবে উল্লেখ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, এভাবে মানবতার সেবা করে যেতে হবে, লেখাপড়া শিখতে হবে।

দক্ষ জনশক্তি চাই। চতুর্থ শিল্প বিপ্লবের জন্য প্রস্তুত হতে হবে। দূরদৃষ্টি সম্পন্ন হতে হবে। সংগঠন শক্তিশালী করতে যেকোনো ত্যাগ স্বীকার করার জন্য নেতাকর্মীদের মানসিকতা গড়ে তোলার আহ্বান জানিয়ে আওয়ামী লীগ সভাপতি বলেন, মন্ত্রিত্ব নয়, সংগঠন আগে। বঙ্গবন্ধুর আদর্শ অনুকরণ করা উচিত।

Leave a Reply

Your email address will not be published.