মেসিকে দলে ভেড়াতে তিনশ মিলিয়ন ইউরোর প্রস্তাব!

ইউরোপিয়ান লিগ ছেড়ে গত ১ জানুয়ারি এশিয়ার দেশ সৌদি আরবের আল নাসের ক্লাবে যোগ দিয়েছেন পর্তুগিজ তারকা ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো৷ এবার আর্জেন্টাইন মহাতারকা লিওনেল মেসিকে নিজেদের দলে ভেড়াতে চায় আল নাসেরের চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী ক্লাব আল হিলাল। এজন্য বছরে তিনশ মিলিয়ন ইউরোর প্রস্তাবও নাকি দিচ্ছে এশিয়ান চ্যাম্পিয়নরা।

কাতার বিশ্বকাপে আর্জেন্টিনাকে স্তব্ধ করে দিয়ে শুরু সৌদি আরবের। এরপর রোনালদোকে নিজ লিগে ভিড়িয়ে বিশ্বকে আরও একবার চমকে দিয়েছে মধ্যপ্রাচ্যের দেশটি। এবার বহিঃবিশ্বে ট্যুরিজমের প্রচার ও বিশ্বকাপ বিডের জন্য ইতিবাচক মনোভাব তৈরি করতেই মেসিকে দলে ভেড়ানোর উদ্যোগ নিচ্ছে দেশটি।

স্প্যানিশ গণমাধ্যম মুন্দো দেপোর্তিভোর দাবি, বিশ্বচ্যাম্পিয়ন লিওনেল মেসিকে পেতে চায় সৌদি আরবের ক্লাব আল হিলাল। এজন্য বছরে শুধু বেতন বাবদ অন্তত তিনশ মিলিয়ন ইউরোর প্রস্তাব দিতে চলেছে ক্লাবটি। টাকায় প্রায় ৩ হাজার তিনশ ৬৫ কোটি টাকারও বেশি। যা তার চিরপ্রতিদ্বন্দ্বী রোনালদোর বেতনের প্রায় দেড়গুন।

শুধু ফুটবল নয় বিশ্বের সেরা দুই তারকাকে কাজে লাগিয়ে মূলত বিশ্বের কাছে নিজেদের নতুন করে জানান দিতে চায় সৌদি আরব। নেপথ্যে ট্যুরিজম ও দেশটিতে বৈদেশিক বিনিয়োগ বৃদ্ধি করা। ২০৩০ বিশ্বকাপ বিডের জন্য ফুটবল বিশ্বে নিজেদের তুলে ধরাও অন্যতম কারণ। তাই যদি এমনটা হয়, তাহলে সৌদি প্রো লিগে আবারও নিয়মিত দেখা যেতে পারে মেসি-রোনালদো দ্বৈরথ!

চলতি মৌসুম শেষেই ফ্রান্সের ক্লাব পিএসজির সাথে চুক্তির মেয়াদ শেষ হচ্ছে মেসির। দলটির কর্তারা আর্জেন্টাইন তারকার সঙ্গে নতুন করে চুক্তি বাড়াতে চায়। তবে আসছে জুনে পিএসজির সঙ্গে শেষ হওয়া চুক্তি বাড়াবেন নাকি ফিরবেন পুরনো ঠিকানা বার্সেলোনায়। নাকি, হাঁটবেন রোনালদোর দেখানো পথে? উত্তরের জন্য অবশ্য অপেক্ষা করতে হবে ফুটবলপ্রেমীদের।

অবশ্য সৌদি আরবের সঙ্গে আগে থেকেই সম্পৃক্ত মেসি। দেশটির ট্যুরিজম শুভেচ্ছা দূত বিশ্বকাপজয়ী আর্জেন্টাইন অধিনায়ক। গতবছর মে মাসেই দেশটি ভ্রমণ করে গেছেন মেসি। দেশটির মন্ত্রীর মতে, সেটাই মেসির শেষবার সৌদিতে পা রাখা নয়।

এদিকে চলতি মাসের ১৯ তারিখ আল নাসের ও আল হিলালের সম্মিলিত দলের সঙ্গে একটি প্রীতি ম্যাচ খেলতে আগামী সপ্তাহেই রিয়াদে আসবে ফরাসি চ্যাম্পিয়ন পিএসজি। এর মাধ্যমে মেসি-রোনালদো দ্বৈরথ আবারও দেখা যাবে। হতেও পারে সেটি শেষবারের মতো। তবে মেসি আল হিলালে যোগ দিলে তো এই দুই কিংবদন্তি এশিয়ান ফুটবলেও একে অপরের বিরুদ্ধে লড়াই করবে।

Similar Posts

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *